SSC Physics পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট

১ম অধ্যায় নোট

SSC Chemistry রসায়ন ১ম অধ্যায় নোট

১ম অধ্যায় নোট
SSC Physics পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট

অধ্যায় পরিচিতি

এসএসসি রসায়ন ১ম অধ্যায় নোট। অধ্যায়টির নাম ভৌত রাশি এবং পরিমাপ (Physical Quantities and Their Measurements)।

আরো পড়ুন>> পদার্থবিজ্ঞানের সকল সূত্র (অধ্যায়ভিত্তিক)

অধ্যায়ের সিলেব্যাস

পদার্থবিজ্ঞান, পদার্থবিজ্ঞানের পরিসর, পদার্থবিজ্ঞানের ক্রমবিকাশ, পদার্থবিজ্ঞানের উদ্দেশ্য, ভৌত রাশি এবং তার পরিমাপ, পরিমাপের যন্ত্রপাতি, পরিমাপের ত্রুটি ও নির্ভুলতা।

আরো পড়ুন>> নবম দশম শ্রেণীর পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় সৃজনশীল

প্রাথমিক আলোচনা

আমাদের দৈনন্দিন জীবনের প্রতিটি কাজে বিজ্ঞান ওতপ্রোতভাবে জড়িত। ভোরের টুথপেস্ট থেকে শুরু করে সারা দিনের ইন্টারনেট, মোবাইল সহ রাতের টেলিভিশন সবই বৈজ্ঞানিক আবিস্কারের ফসল।

বিজ্ঞান মানব জীবনকে করেছে সুন্দর ও সমৃদ্ধ, বাড়িয়ে দিয়েছে আরাম-আয়েশ এবং সুখ স্বাচ্ছন্দ্য। কিন্তু বিজ্ঞানের এ সমৃদ্ধি একদিনে সম্ভব হয়নি।

প্রাচীনকাল থেকে অগণিত বিজ্ঞানীর নিরলস সাধনার ফলে বিজ্ঞান আজকের এ অবস্থানে এসে দাঁড়িয়েছে। আমাদের দৈনন্দিন জীবনে প্রায় প্রতিটি কাজের সাথে মাপ-জোখের ব্যাপারটি জড়িত।

এ মাপ-জোখের বিষয়টাকে বলা হয় পরিমাপ। পদার্থবিজ্ঞানের প্রায় সকল পরীক্ষণই বিভিন্ন রাশি পরিমাপ করতে হয়। সূক্ষ্ম পরিমাপের জন্য গণিত শাস্ত্রবিদ পিয়েরে ভার্নিয়ার একটি স্কেল প্রতিষ্ঠা করেন যা ভার্নিয়ার স্কেল নামে পরিচিত।

আরো পড়ুন>> SSC Biology ৬ষ্ঠ অধ্যায়ের হ্যান্ড নোট জেনে নিন

কমন উপযোগী জ্ঞানমূলক প্রশ্ন ও উত্তর

পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট
SSC Physics পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট

>> পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট

এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্ন ও উত্তর

প্রশ্ন ১. পরিমাপের একক কাকে বলে?

উত্তর: যে নির্দিষ্ট পরিমাণের সাথে তুলনা করে সব ভৌত রাশির পরিমাপ করা হয় তাকে পরিমাপের একক বলে।

প্রশ্ন ২. মাত্রা কাকে বলে?

উত্তর: যে কোনো ভৌত রাশিকে বিভিন্ন সূচকের এক বা একাধিক মৌলিক রাশির গুণফল হিসেবে প্রকাশ করা যায়। কোনো ভৌত রাশিকে উপস্থিত মৌলিক রাশি গুলোর সূচককে রাশিটির মাত্রা বলে।

প্রশ্ন ৩. লঘিষ্ঠ গণন কী?

উত্তর: স্ক্রুগজের বৃত্তাকার স্কেলের মাত্র একভাগ ঘুরালে উহার T এর প্রান্ত বা স্ক্রটি যতটুকু সারে আসে তাই যন্ত্রের লঘিষ্ঠ গণন।

প্রশ্ন ৪. পিচ কী?

উত্তর: স্ক্রুগজের বৃত্তাকার স্কেলটি একবার ঘুরালে একটি রৈখিক স্কেল বরাবর যেটুকু দূরত্ব অতিক্রম করে তাই স্ক্রুর পিচ।

প্রশ্ন ৫. বৈজ্ঞানিক প্রতীক কাকে বলে?

উত্তর: বিজ্ঞানের বিভিন্ন রাশির গাণিতিক প্রকাশকে বৈজ্ঞানিক প্রতীক বলা হয়।

প্রশ্ন ৬. মৌলিক রাশি কী?

উত্তর: যেসব রাশি স্বাধীন বা নিরপেক্ষ অর্থাৎ অন্য রাশির উপর নির্ভর করে না বরং অন্যান্য রাশি এদের উপর নির্ভর করে তাদেরকে মৌলিখ রাশি বলে।

প্রশ্ন ৭. ভার্নিয়ার ধ্রুবক কী?

উত্তর: প্রধান স্কেলের ক্ষুদ্রতম এক ভাগের চেয়ে ভার্নিয়ার স্কেলের একভাগ কতটুকু ছোট তার পরিমাণই হলো ভার্নিয়ার ধ্রুবক।

আরো পড়ুন>> ৯ম ও ১০ম শ্রেণির রসায়ন ২য় অধ্যায় হ্যান্ড নোট

শীর্ষস্থানীয় স্কুলসমূহের টেস্ট পরীক্ষার প্রশ্ন ও উত্তর

প্রশ্ন ৮. লব্ধ রাশি কাকে বলে?

উত্তর: মৌলিক রাশিগুলো থেকে অন্য সব রাশি লাভ করা যায়। অর্থাৎ এক বা একাধিক মৌলিক রাশির গুণফল বা ভাগফল প্রতিপাদন করা যায়। এদেরকে বলা হয় লব্ধ রাশি বা যৌগিক রাশি।

প্রশ্ন ৯. যান্ত্রিক ত্রুটি কী?

উত্তর: পদার্থবিজ্ঞানে পরীক্ষণের জন্য তথা মাপ-জোখের জন্য ব্যবহৃত যন্ত্রে যে ত্রুটি থাকে সেটাই যান্ত্রিক ত্রুটি।

প্রশ্ন ১০. পরিমাপ কী?

উত্তর: পরিমাপ যোগ্য কোনো কিছুর পরিমাণ নির্ণয় করাই পরিমাপ।

প্রশ্ন ১১. স্ক্রুগজ কী?

উত্তর: যে পরিমাপ যন্ত্রে একটি সমব্যাসার্ধের মাইক্রোমিটার স্ক্রু থাকে সেটিই স্ক্রুগজ নামে পরিচিত।

আরো পড়ুন>> A Road Accident Paragraph For All Class (JSC To HSC)

কমন উপযোগী অনুধাবনমূলক প্রশ্ন ও উত্তর

>> পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট

এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্ন ও উত্তর

প্রশ্ন ১. দেখাও যে, বল একটি লব্ধ রাশি।

উত্তর: বল একটি লব্ধ রাশি। বল নিজে স্বাধীন বা নিরপেক্ষ নয়। একে প্রকাশ করতে ভর ও ত্বরণের দরকার হয়। নিউটনের গতির দ্বিতীয় সূত্র হতে পাই, বল = ভর X ত্বরণ। এখানে ভর মৌলিক রাশি ঠিক কিন্তু ত্বরণ লব্ধ রাশি। কারণ ত্বরণ স্বাধীন বা নিরপেক্ষ নয়। ত্বরণকে প্রকাশ করতে দূরত্ব ও সময়ের প্রয়োজন হয়।

অর্থাৎ বল = ভর X সরণ /সময়২

সুতরাং বলকে প্রকাশের জন্য ভর, সরণ ও সময় এ তিনটি মৌলিক রাশি প্রয়োজন। তাই ভল একটি লব্ধ রাশি।

প্রশ্ন ২. স্ক্রু গজের ন্যূনাঙ্ক 0.01 mm বলতে কী বুঝায়?

উত্তর: ন্যূনাঙ্ক = পিচ/বৃত্তাকার স্কেলের ভাগের সংখ্যা।

অর্থাৎ স্ক্রু গজের ন্যূনাঙ্ক 0.01 mm বলতে বুঝায় যন্ত্রের পিচকে বৃত্তাকার স্কেলের ভাগের সংখ্যা দ্বারা ভাগ করলে ন্যূনাঙ্কের মান হবে 0.01 mm।

প্রশ্ন ৩. অ্যাম্পিয়ারের সংজ্ঞা দাও। 

উত্তর: শূন্যস্থানে 1 মিটার দূরত্বে অবস্থিত অসীম দৈর্ঘ্যের এবং উপক্ষেণীয় বৃত্তাকার প্রস্থচ্ছেদের দুটি সমান্তরাল সরল পরিবাহীর প্রত্যেকটিতে যে পরিমাণ তড়িৎ প্রবাহ চললে পরস্পরের মধ্যে প্রতি মিটার দৈর্ঘ্যে 2 X 10-7 নিউটন বল উৎপন্ন হয় তাকে 1 অ্যাম্পিয়ার বলে।

>> পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট

>> ১ম অধ্যায় নোট

One Comment on “SSC Physics পদার্থবিজ্ঞান ১ম অধ্যায় নোট”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *